ajkervabna.com
সোমবার ২৭শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১২ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

কাশিয়ানীতে মুক্তিযোদ্ধার বসতভিটার গাছ কাটলো প্রভাবশালীরা

অনলাইন ডেস্ক | ০৬ মার্চ ২০২১ | ৬:০৫ অপরাহ্ণ | 445 বার

কাশিয়ানীতে মুক্তিযোদ্ধার বসতভিটার গাছ কাটলো প্রভাবশালীরা

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে জায়গা দখল করতে মুক্তিযোদ্ধার বসতভিটার গাছ কেটে ফেলেছে স্থানীয় প্রভাবশালীরা।

শুক্রবার (৫ মার্চ) ভোরে কাশিয়ানী সদর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনার পর চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছেন ওই অসহায় পরিবারটি।

পক্ষাগ্রস্থ বীর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ মো: তৈয়ব আলী অভিযোগ করে বলেন, ১৯৮৩ সালে কাশিয়ানী সদরে ৩৪ শতাংশ জমি কিনে বসতবাড়ি করে বসবাস করে আসছি। এ জায়গার ওপর নজর পড়ে প্রতিবেশি রনজিত, তাপস, স্বপনসহ এলাকার কিছু সংঘবদ্ধ চক্রের। দীর্ঘদিন ধরে তারা আমার বাড়ির জায়গা দখল ও গাছপালা কেটে নেয়ার পাঁয়তারা করে আসছিল। শুক্রবার ভোর ৬ টার দিকে ওই প্রভাবশালীরা লোকজন নিয়ে এসে আমার রোপন করা বিশাল আকৃতির আমড়া, নারকেল, বেল ও মেহগনি গাছ কাটার চেষ্টা করে। এ সময় আমার স্ত্রী শাহিনা পারভীন গাছ কাটতে বাঁধা দিতে গেলে তারা আমার স্ত্রীর ওপর চড়াও হয়। এক পর্যায় তারা ভয়ভীতি দেখিয়ে জোরপূর্বক আমার ৮টি বিভিন্ন প্রজাতির গাছ কেটে ফেলে রেখে চলে যায়।

মুক্তিযোদ্ধা তৈয়ব আলীর স্ত্রী শাহিনা পারভীন কান্নাজড়িত কণ্ঠে সাংবাদিকদের বলেন, যে দেশের জন্য জীবন বাজি রেখে আমার স্বামী যুদ্ধ করেছিল। আজ সে দেশে নিজ ভিটায় বসবাস করেও আমরা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। আমরা স্বামী-স্ত্রী দুই বুড়াবুড়ি বাড়িটিতে বসবাস করি। স্থানীয় একটি জালিয়াতি চক্রের কর্মকান্ডে আমরা চরম শঙ্কায় রয়েছি। এই চক্র যেকোন সময় আমাদের ক্ষতি করতে পারে। তাই আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও প্রশাসনের সুদৃষ্টি কামনা করছি।

এ ব্যাপারে অভিযুক্তদের সাথে কথা বলার জন্য তাদের বাড়িতে গিয়ে কাউকে পাওয়া যায়নি।

কাশিয়ানী থানার ওসি মো. আজিজুর রহমান বলেন, এখন পর্যন্ত থানায় কেউ অভিযোগ দেয়নি। অভিযোগ পেলে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ৬:০৫ অপরাহ্ণ | শনিবার, ০৬ মার্চ ২০২১

ajkervabna.com |

advertisement
এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
advertisement
আর্কাইভ
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০  
advertisement

©- 2021 ajkervabna.com কর্তৃক সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।